সোমবার, জানুয়ারি ২৫, ২০২১
Home Lifestyle ১৫০ পেরিয়ে এখনও স্বমহিমায় কলেজ স্ট্রিটের পুঁটিরাম!

১৫০ পেরিয়ে এখনও স্বমহিমায় কলেজ স্ট্রিটের পুঁটিরাম!

১৭৯ Views

বিশ্বজিৎ মান্না

বয়স ১৫০ পেরিয়েছে। তবুও স্বাদ সেই আগের মতো। কথা হচ্ছে কলকাতার অন্যতম সেরা, ঐতিহ্যবাহী স্ন্যাক্স এবং মিষ্টির দোকান পুঁটিরাম নিয়ে। ভোজন রসিকদের কাছে অন্যতম সেরা গন্তব্য কলেজ স্ট্রিটের এই দোকান। মূলত ব্রেকফাস্ট, স্ন্যাক্স আর মিষ্টির জন্য অত্যন্ত জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে কলকাতার অন্যতম প্রাচীন এই দোকান।

সম্প্রতি Be A Food Day চ্যানেলের অর্ণব ও গৌরব হাজির হয়েছিল পুঁটিরামে। সেখানকার বিখ্যাত কচুরি সহ অন্যান্য মিষ্টিও তারা চেখে দেখেছে। উত্তর কলকাতার এক জমজমাট লোকেশনে অবস্থিত পুঁটিরাম। কাছেই রয়েছে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়, কলকাতা মেডিকেল কলেজ এবং হাসপাতাল, প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়। সেই সাথে কলেজ স্ট্রিটে আগত বই ক্রেতারাও আছেন। বিশেষত আশেপাশের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পড়ুয়াদের কাছে সস্তায় পুষ্টিকর খাদ্যের মাধ্যমে পেট ভরানোর অন্যতম গন্তব্য তাদের হাতের কাছে থাকা পুঁটিরাম। কলকাতার শতবর্ষ প্রাচীন দোকান হলেও আজও পুঁটিরামের অধিকাংশ আইটেমের দাম রয়েছে সাধারণ মানুষের নাগালের মধ্যে। শুধু কলকাতাই নয়, পুঁটিরামের খাবার খেতে শহরের বাইরে, এমনকি বিদেশ থেকেও অনেক ফুড ব্লগার এসেছেন কলেজ স্ট্রিটের এই দোকানে।

শপিং মলের ঝাঁ চকচকে দোকানের মতো পরিকাঠামো নেই বটে। তবে ঐতিহ্যের ছোঁয়ায় পুঁটিরাম যেকোনো মাল্টিন্যাশনাল কোম্পানির খাবারকেও হার মানাতে পারে। খাবার নিয়ে দোকানের মধ্যে বসেই খাওয়া যায়। তবে করোনা পরিস্থিতি এবং সোশ্যাল ডিস্ট্যান্স বিধির কারণে আপাতত দোকানের মধ্যে খাবার সার্ভ করা হচ্ছে না। তবুও খাদ্য রসিকদের উৎসাহের অভাব নেই।

নলেন গুড়ের রসগোল্লা, সন্দেশের মতো জিভে জল এনে দেওয়া মিষ্টির পাশাপাশি পুঁটিরামের অন্যতম বেস্ট সেলিং আইটেম হল কচুরি আর ছোলার ডাল। ছোলার ডালের গন্ধেই যেন প্রাণ জুড়িয়ে যায়! ব্রেকফাস্টের জন্য আদর্শ খাবার হতে পারে পুঁটিরামের এই কচুরি। আর সেই সাথে নানারকম মিষ্টি তো আছেই! বিশেষত গ্রামে না গিয়েও, কলকাতায় থেকে, এই শীতে যদি গুড়ের রসগোল্লা চেখে দেখতে চান, তাহলে আপনাকে একবার পুঁটিরামে ঢুঁ মারতে হবেই।

কীভাবে যাবেন

কলকাতার প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত পুঁটিরামে খুব সহজেই পৌঁছানো যায়। নিজস্ব গাড়ি থাকলে সহজেই পৌঁছে যেতে পারেন কলেজ স্ট্রিটের এই দোকানে। আর না হলে পুঁটিরামে পৌঁছানোর অন্যতম সেরা উপায় মেট্রোতে করে যাওয়া। কলেজ স্ট্রিটের নিকটবর্তী স্টেশন হল সেন্ট্রাল বা এমজি রোড। সেখান থেকে হাঁটা পথেই পৌঁছে যেতে পারেন পুঁটিরামে। রাস্তা না চেনা থাকলে, কাউকে জিজ্ঞাসা করলে সহজেই এই দোকানের সন্ধান পেয়ে যাবেন। আর হাতে যদি স্মার্টফোন থাকে, তাহলে জিপিএস অন করে সহজে পৌঁছে যেতে পারেন এই দোকানে। তাহলে, এই শীতে একবার নলেন গুড়ের রসগোল্লা খেতে যেতেই হবে পুঁটিরামে! আর সেই সাথে সাবস্ক্রাইব করুন Be A Food Day চ্যানেলটি, যাতে আগামীতেও তাদের এরকম আরও নানা খাবারের ভিডিও দেখতে পারেন। নীচে দেওয়া রইল চ্যানেলের লিঙ্ক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

সিকিমের নাকুলা পাস সীমান্তে ভারত-চিন সেনার হাতাহাতি

লাদাখ সেক্টর ভারত-চিন সেনার মধ্যে বিগত কয়েকদিন ধরে একটা চাপা উত্তেজনা তৈরি হয়েছিল। এবার সিকিমের কাছে চিন সীমান্তে সরাসরি সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ল...

ফ্রায়েড চিকেন আর পিৎজার যুগেও প্রাসঙ্গিকতা হারায়নি হরিদাস মোদক

বিশ্বজিৎ মান্না আজ যা আছে, কাল হয়তো থাকবে না! বা বদলে যাবে। এটাই নিয়ম। ঠিক যেমন আমাদের প্রিয় শহর...

ভারত-ইংল্যান্ড টেস্ট সিরিজ: প্রথম দুটি ম্যাচে মাঠে দর্শক থাকবে না

ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে আসন্ন টেস্ট সিরিজের মাধ্যমে দীর্ঘ প্রায় এক বছর পর ভারতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট শুরু হবে। ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে চারটি টেস্ট ম্যাচ খেলবে...

অসুস্থ লালুপ্রসাদ যাদব

নিউমোনিয়ায় ভুগছেন বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা আরজেডি প্রধান লালুপ্রসাদ যাদব। ঝাড়খন্ড স্টেট মেডিকেল বোর্ডের পরামর্শ অনুযায়ী, উন্নত চিকিৎসার জন্য শনিবার তাকে রাঁচির...

Recent Comments

error: Content is protected !!